Bengali

ভবঘুরে

FacebookTwitterGoogleLinkedIn


ক্লান্ত হয়ে আমি পথের মাঝে বসে পড়লাম ,সামনে দীর্ঘ পথ ,পিঠে প্রচুর বোঝা ,আমি পথশ্রান্ত ,
নিচে দিয়ে একটি নদীর আওয়াজ শুনতে পাচ্ছি, কুয়াশার জন্যে ঠিক ঠাহর করা যাচ্ছেনা
একটুক্ষণ শুনে বুঝতে পারলাম নদীটা আসলে একটা গান গাইছে ,
আমি ধীরে গানটা গুনগুন করে গাইতে লাগলাম

তাবুর ফাঁক দিয়ে হটাত করে সকালবেলার রোদ্দুরটা মুখে এসে পড়লো
আমি ধড়মর করে উঠে বসলাম, বুঝলাম ভোর হয়েছে
তাবুর বাইরে এসে আড়মোড়া ভাঙ্গতেই পাখিগুলু চিত্কার শুরু করে দিল
ভয় পেয়েছে নিশ্চয় , দুরে দেখতে পেলাম একটা শেয়াল আমার দিকে নজর রেখে জল খাচ্ছে
হটাত সকালের স্নিগ্ধ বাতাস আমাকে আলতো করে ছুয়ে জিগ্গেস করলো, কিগো, ঘুম ভালো হলো ?

তারপর আমি সর্বোচ্চ শৃঙ্গের উপর উঠে এক চুমুক রাম খেলাম
সচেয়ে গহীন জঙ্গলে প্রবেশ করে একটি গাছের উপর রাত কাটালাম
সমুদ্রের ধরে বসে পাগলের মতো গায়ে বালি মাখলাম
আর কোনো এক ভগ্ন প্রাসাদের মাঝে বসে এই কবিতাটি লিখলাম
আমি ভবঘুরে , নিরুদ্দেশের উদ্দেশ্যে ঘুরে বেড়ানোই আমার কাজ 

Leave a Reply


Your email address will not be published. Required fields are marked *